ঢাকা, বুধবার, ২৫ নভেম্বর, ২০২০

কুয়াকাটায় পাউবো’র জমিতে স্থাপনা নির্মাণ,কর্তৃপক্ষ অজ্ঞাত কারণে উদাসীন

পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্মকর্তাদের উদাসীনতায় গত পনের দিন ধরে কুয়াকাটার একটি গুরুত্বপূর্ণ জায়গায় ঘর তুলে অবৈধ দখল নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। পাউবো কলাপাড়া কর্তৃপক্ষ কেবল উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবং সংশ্লিষ্ট থানাকে অবহিত করেই ক্ষান্ত হওয়ায় দখলদাররা ঘর তোলার এ সুযোগ নিয়েছে। ফলে দখল হয়েছে পাউবো’র অন্তত দুই কোটি টাকার সম্পত্তি। পাউবো’র কর্তাব্যক্তিদের সম্পত্তি রক্ষার দায়সারা তৎপরতা দেখে প্রশ্ন তুলছে স্থানীয় লোকজন। সরজমিনে দেখা গেছে, কুয়াকাটা রাখাইন মহিলা মার্কেটের পেছনে এবং কুয়াকাটা শ্রীমঙ্গল বৌদ্ধ বিহার সংলগ্ন প্রতœতত্ত¡ অধিদপ্তরের সংরক্ষিত নৌকাটির পাশেই অবৈধ স্থাপনাটি নির্মাণ করা হয়। কলাপাড়ার ৪৮নম্বর পোল্ডারের কুয়াকাটা পৌরসভার ৫৭ নম্বর জেএলভূক্ত মৌজার বেড়িবাঁধের ঢালে এ অবৈধ স্থাপনা তোলার সময় স্থানীয়রা মোবাইল ফোনে জানায় পাউবো’র নির্বাহী প্রকৌশলীকে। পরবর্তীতে গত ১১ নভেম্বর অবৈধ দখলদার মোঃ ইউসুফ খলিফার নাম উল্লেখ করে কলাপাড়া নির্বাহী প্রকৌশলী খান মোহাম্মদ ওয়ালিউজ্জামান স্বাক্ষরিত একটি পত্রে স্থায়ীভাবে সরকারি সম্পত্তি দখলে উদ্বেগ জানানো হয়।

এদিকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবং মহিপুর থানাকে পাউবো কলাপাড়া নির্বাহী প্রকৌশলী দায়সারা গোছের ব্যবস্থা গ্রহণে অনুরোধ জানালেও দৃশ্যমান তাদের কোন তৎপরতা ছিলনা বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। সর্বশেষ প্রকাশ্য দিবালোকে ইট সিমেন্ট ব্যবহার করে পাকা মেঝের ওপর দ্বিতল টিনের ঘরটি দৃশ্যমান হয়। এছাড়া কুয়াকাটা পৌর এলাকাসহ একই পেল্ডারের বিভিন্ন স্থানে পাউবোর জমিতে অবৈধ দখলদাররা ঘর তুলে মোটা অংকের টাকায় অন্যকে দখল বুঝিয়ে দেওয়ারও অসংখ্য নজির রয়েছে। এ প্রসঙ্গে পাউবোর নির্বাহী প্রকৌশলী খান মোহাম্মদ ওয়ালিউজ্জামান বলেন, অবৈধ দখলদারদের তালিকা প্রস্তুত করা হচ্ছে, অচিরেই এসব উচ্ছেদে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে জেলা প্রশাসককে লিখিত অনুরোধ জানানো হবে। 

করোনা পরিস্থিতি বাংলাদেশ

২৪ ঘণ্টায় মোট
পরীক্ষা ১৫০১৮ ২৬৮০১৪৯
আক্রান্ত ২২৩০ ৪৫১৯৯০
সুস্থ ২২৬৬ ৩৬৬৮৭৭
মৃত ৩২ ৬৪৪৮

Our Facebook Page