ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২

১০ বছরের কারাদণ্ড এড়াতে ২০ বছর ধরে আত্মগোপনে

আদালতের দেওয়া ১০ বছরের কারাদণ্ড এড়াতে ২০ বছর ধরে আত্মগোপনে ছিলেন এক ব্যক্তি। স্থায়ী আবাস গড়েছিলেন ভারতে। তবে আর শেষ রক্ষা হলো না। অবশেষে তাঁকে পুলিশের হাতে ধরা পড়তেই হলো। শুক্রবার (৭ মে) দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে রাজশাহীর তানোর থানা পুলিশ তাকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার ঘুঘুডিমা গ্রাম থেকে গ্রেফতার করে।


জানা যায়, কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ওই ব্যক্তির নাম আবদুস সাত্তার। বয়স আনুমানিক ৬০ বছর। বাবার নাম মো. গরিবুল্লাহ। তানোর উপজেলার কিসমত বিল্লি গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন তিনি। এক সময় ডাকাত হিসেবে কুখ্যাতি ছিল সাত্তারের। ১৯৯৯ সালের ৯ মার্চ এক ডাকাতির ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয়। ওই মামলা পর থেকেই ভারতের মুর্শিদাবাদে আত্মগোপনে চলে যান সাত্তার।


রাজশাহী জেলা পুলিশের মুখপাত্র ইফতেখায়ের আলম জানান, ডাকাতির অভিযোগ অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আদালত আসামির অনুপস্থিতিতেই তাকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড এবং এক হাজার টাকা জরিমানা করেন। জরিমানার অর্থ অনাদায়ে আরও তিন মাসের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়। কিন্তু আসামিকে আর পাওয়া যায়নি। তিনি ভারতে গিয়ে স্থায়ী হন।


তিনি আরও জানান, কয়েকদিন আগে আবদুস সাত্তার চাঁপাইনবাবগঞ্জে মেয়ের বাড়িতে বেড়াতে আসেন। গোপন তথ্যের ভিত্তিতে তানোর থানা পুলিশ বিশেষ অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে। শনিবার আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইফতেখায়ের আলম।

ads
ads

করোনা পরিস্থিতি বাংলাদেশ

২৪ ঘণ্টায় মোট
পরীক্ষা ৩৪০৬৭ ২৯৩২৭৬
আক্রান্ত ৩৬৮ ১,৯৪৬,৭৩৭
সুস্থ ৪,০১৮ ১,৮৩৯,৯৯৮
মৃত ১৩ ২৯,০৭৭

Our Facebook Page