ঢাকা, রবিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২১

রোগীর চাপ সামাল দিতে পারছে না সরকারি হাসপাতালগুলো

পুরো রাজধানীতে করোনায় আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য সাধারণ শয্যা রয়েছে মাত্র আড়াই হাজার। আইসিইউ বেড আছে মাত্র ১২৮টি। এসব দিয়ে করোনার দ্বিতীয় ধাক্কায় রোগীর চাপ সামাল দিতে পারছে না রাজধানীর সরকারি হাসপাতালগুলো।


গতবারের করোনার অভিজ্ঞতা কেন কাজে লাগানো হচ্ছে না সেই প্রশ্ন তুলেছেন রোগীর স্বজনরা।  তবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর বলছে, মানুষ সচেতন না হলে শয্যা বাড়িয়েও লাভ নেই। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ শুরুর পরই মুগদা জেনারেল হাসপাতালকে পুরোপুরি কোভিড হাসপাতাল করা হয়। ৩১০ শয্যার এই হাসপাতালটিতে মাস দেড়েক আগেও সিট খালি পাওয়া যেতো। একমাস ধরেই বাড়ছিলো রোগীর চাপ।


এখন এ হাসপাতালে সিট পাওয়া যেনো সোনার হরিণ! সুস্থ হয়ে কোনো একজন হাসপাতাল ছাড়েন কি না এ অপেক্ষায় থাকেন নতুন রোগীর স্বজনেরা। গত দশদিনে এ হাসপাতালের ১৯টি আইসিইউ বেডের একটিও ফাঁকা হয়নি।


মুগদা হাসপাতালের উপ পরিচালক (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ডা. নুরুল ইসলাম বলেন, "আমাদের রোগীর সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে এটা পরিস্কার। আমরা ১৪টি আইসিইউ চালু রেখেছি আড় ৫টি যোগ করে এখন ১৯ টি আছে। এরপরও কমতি আছে। এর মধ্যেই আমরা প্রস্তুত আছি রগীদের সেবা দেয়ার জন্য।"  

ads
ads

করোনা পরিস্থিতি বাংলাদেশ

২৪ ঘণ্টায় মোট
পরীক্ষা ১৯৪০৪ ৫১৫১১৬১
আক্রান্ত ৩৬৯৮ ৭১৮৯৫০
সুস্থ ৬১২১ ৬১৪৯৩৬
মৃত ১০২ ১০৩৮৫

Our Facebook Page